• বুধবার   ০৬ জুলাই ২০২২ ||

  • আষাঢ় ২২ ১৪২৯

  • || ০৬ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৩

আজকের খুলনা

ফিরতে শুরু করেছে সেন্টমার্টিনে আটকে পড়া পর্যটকরা

আজকের খুলনা

প্রকাশিত: ১৯ অক্টোবর ২০২১  

বৈরী আবহাওয়ার কারণে কক্সবাজারের সেন্ট মার্টিন দ্বীপে আটকে পড়া তিন শতাধিক পর্যটক ঝুঁকি নিয়ে টেকনাফ ফিরছে। আবহাওয়া পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হওয়ার পর আজ  মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) সকাল থেকে ট্রলারে করে ঝুঁকি নিয়ে টেকনাফ ফিরছে এসব পর্যটক। 

জানা গেছে, তাদের অনেকেই লাইফ জ্যাকেট পরিহিত ছিল। এছাড়াও ধারণ ক্ষমতার অধিক যাত্রী ট্রলারে তোলা হয়েছে বলে জানিয়েছে পর্যটন ব্যবসায়ীরা। 

সেন্ট মার্টিন ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নুর আহমদ জানান, দ্বীপে তিন শতাধিক পর্যটক আটকা পড়ে। উপজেলা প্রশাসনের নির্দেশনায় তাদের দেখভাল করা হয়। অন্যদিকে বিভিন্ন কাজকর্মে এবং একটি ফুটবল ম্যাচ দেখতে গিয়ে সেন্ট মার্টিনের পাঁচ শতাধিক বাসিন্দা টেকনাফে আটকা পড়ে। তিনি বলেন,  বঙ্গোপসাগরে লঘুচাপের কারণে  কক্সবাজারকে তিন নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত দেখিয়ে যেতে বলে আবহাওয়া অফিস। এ কারণে টেকনাফ সেন্টমার্টিন নৌরুটে নৌযান চলাচল বন্ধ করে দেয় প্রশাসন। আজ মঙ্গলবার আবহাওয়া পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হলে সকাল সাড়ে ৮টার দিকে ৯টি ট্রলারে করে টেকনাফে উদ্দেশে রওনা দেন আটকেপড়া পর্যটক। যাদের দুপুর ১টার দিকে টেকনাফ পৌছার কথা রয়েছে।

আবহাওয়া অফিস সহকারী আবহাওয়াবিদ আবদুর রহমান বলেন, আবহাওয়া পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হয়েছে। তবে এখন পর্যন্ত কক্সবাজারকে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে। দুপুর নাগাদ এ সংকেত নামিয়ে ফেলা হতে পারে।

এর আগে সাগরে লঘুচাপের কারণে কক্সবাজারের সেন্ট মার্টিন দ্বীপে দুই দিন ধরে আটকা পড়ে তিন শতাধিক পর্যটক। তারা গত শনিবার ট্রলারে করে দ্বীপে বেড়াতে যায়। সাগর উত্তাল থাকায় এবং স্থানীয় ৩ নম্বর সতর্কতা সংকেত থাকায় গতকালও কোনো ট্রলার দ্বীপ থেকে ছেড়ে যায়নি। তবে সেন্ট মার্টিন কোস্ট গার্ড জানায়, গতকাল বিকেলের দিকে আবহাওয়া কিছুটা ভালো থাকায় ট্রলারগুলো ছাড়তে অনুমতি দেওয়া হয়। কিন্তু সন্ধ্যা ঘনিয়ে আসায় কোনো ট্রলার দ্বীপ ছাড়তে চায়নি।

আজকের খুলনা
আজকের খুলনা