• বুধবার ১২ জুন ২০২৪ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ২৯ ১৪৩১

  • || ০৪ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫

আজকের খুলনা

খুলনায় জমবে ইফতার রাজনীতি

আজকের খুলনা

প্রকাশিত: ২৪ মার্চ ২০২৩  

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আর বাকি মাত্র ন’মাস; তার আগেই খুলনা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন। এর মধ্যে রাজনৈতিক দলগুলো নির্বাচনের প্রস্তুতি শুরু করেছে। আর এবার রমজান মাস জুড়ে ইফতার পার্টির মাধ্যমে দলীয় রাজনীতি চাঙ্গার পাশাপাশি জনগনের দৃষ্টি আকর্ষণে কৌশল নেবে রাজনৈতিক দলগুলো। ইতোমধ্যেই নামী-দামী হোটেল, রেস্তোরাঁ ও কমিউনিটি সেন্টার বুকিং দিয়েছে তারা। আগামী ৩১ মার্চ মহানগর বিএনপি ইফতার মাহফিলে প্রধান অতিথি থাকবেন মহাসচিব ফখরুল ইসলাম আলমগীর; জেলা বিএনপি’র ইফতার মাহফিলেও থাকবেন কেন্দ্রীয় একাধিক জাতীয় নেতা। ক্ষমতাসীন আ’লীগের মহানগর ও জেলা শাখার ইফতার মাহফিলে অতিথি এখনো চূড়ান্ত না হলেও দলটির একাধিক জাতীয় নেতা আসবেন খুলনায়। এছাড়া বঙ্গবন্ধুর ভ্রাতুষ্পুত্র পরিবারতো রয়েছেই। অন্যদিকে অন্যান্য দলগুলোর পাশাপাশি বড় এ দু’টি দলের উদ্যোগে ওয়ার্ড পর্যায়ে ইফতার পার্টির আয়োজনতো থাকছেই। দ্রব্যমূল্যের উর্ধ্বগতি হলেও এবার ইফতার পার্টিকে কেন্দ্র করে রাজনৈতিক দলগুলোর মধ্যে তোড়জোড় বেশি লক্ষ্য করা যাচ্ছে। তাই এবার জমজমাট হচ্ছে ইফতার রাজনীতি।

আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে এটাই শেষ রমজান। এ মাস জুড়ে রাজনৈতিক দলগুলোর ইফতার পার্টির আয়োজনের তোড়জোড়ও অন্যবারের চেয়ে অনেক বেশি। শুধু শহরে নয়, অধিকাংশ রাজনৈতিক দল এবার গ্রামপর্যায়ে ইফতার পার্টির আয়োজনে প্রস্তুতি নিয়েছে। এর মাধ্যমে নিজ নিজ দলের সর্বস্তরের নেতা-কর্মীদের রাজনীতিতে সক্রিয় করার চেষ্টা করবে।

২০২০ ও ২০২১ সালে করোনার কারণে রাজনৈতিক দলগুলো ইফতার পার্টির আয়োজন করেনি; তবে করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে থাকায় গত বছর রাজনৈতিক দলগুলো ইফতার পার্টির আয়োজন করেছিল। তবে এবার নির্বাচনী আমেজ শুরু হওয়ায় রাজনৈতিক দলগুলোর ইফতার পার্টি নতুন মাত্রা পাচ্ছে। ইফতার পার্টিকে কেন্দ্র করে রাজনীতিও জমজমাট হবে। এর মাধ্যমে আসন্ন কেসিসি এবং আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনের প্রস্তুতি জোরদারের পাশাপাশি সর্বস্তরের নেতা-কর্মীদের মধ্যে সম্পর্ক উন্নয়নের চেষ্টা করা হবে। 

বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে, মূলত কেসিসি ও জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে থাকায় এবার রমজান মাসে ইফতার পার্টিকে বেশি প্রাধান্য দিচ্ছে রাজনৈতিক দলগুলো। প্রতিটি বড় রাজনৈতিক দল কেন্দ্র থেকে শুরু করে তৃণমূল পর্যায়ে ইফতার পার্টি আয়োজন করবে। ইফতার পার্টিকে কেন্দ্র করে রাজনৈতিক দলের নেতা-কর্মীদের মধ্যে কুশল বিনিময়সহ দলের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলাপ-আলোচনার ব্যবস্থা করবে। আর এর মাধ্যমে নির্বাচনের আগে রাজনৈতিক  দলের নেতা-কর্মীরা আরও বেশি সক্রিয় হবে। 

মহানগর বিএনপি’র আহবায়ক এড. শফিকুল আলম মনা বলেন, “ইফতার মাহফিল সামাজিক ও ধর্মীয় কর্মসূচি; এটা নিয়ে রাজনৈতিক বক্তব্য শোভনীয় নয়। তবে এটা ঠিক যে, ইফতার মাহফিলে পরস্পর সৌহাদ্যপূর্ণ সম্পর্ক ও সামাজিক বন্ধন মজবুত হয়। সে কারণে খুলনার বিশিষ্টজনদের সম্মানে আগামী ৩১ মার্চ ৯ রমজান খুলনা প্রেসক্লাব মিলনায়তনে ইফতার মাহফিল আয়োজনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। ইফতার মাহফিলে বিএনপি’র মহাসচিব ফখরুল ইসলাম আলমগীর উপস্থিত থাকবেন।”

জেলা বিএনপি’র সদস্য সচিব এসএম মনিরুল হাসান বাপ্পী বলেন, “জেলা বিএনপি’র ইফতার মাহফিলের তারিখ প্রস্তুতি সভায় চুড়ান্ত করা হবে। তবে সে অনুষ্ঠানে একাধিক জাতীয় নেতাসহ কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ অংশগ্রহন করবেন। এছাড়া উপজেলা, পৌরসভা, ইউনিয়ন এবং ওয়ার্ড পর্যায়েও সম্ভব হলে ইফতার মাহফিল আয়োজনের নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।”

নগর আ’লীগের দপ্তর সম্পাদক মুন্সী মাহবুব আলম সোহাগ জানান, প্রতিটি ওয়ার্ডে, থানায় ও মহানগর শাখার আয়োজনে ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়া দরিদ্রদের মাঝে ইফতার সামগ্রী বিতরণ করা হবে। বঙ্গবন্ধুর ভ্রাতুষ্পুত্র শেখ হেলালউদ্দিন এমপি, নগরপিতা তালুকদার আব্দুল খালেক, খুলনা-২ আসনের সংসদ সদস্য সেখ সালাউদ্দিন জুয়েল, বিসিবি পরিচালক ও যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য শেখ সোহেলের সৌজন্যে ইফতার সামগ্রী বিতরণ করা হবে। এছাড়াও যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ ও ছাত্রলীগ ইফতার বিতরণ করবে। 

জেলা আ’লীগের দপ্তর সম্পাদক এম এ রিয়াজ কচি বলেন, জেলা আ’লীগের আয়োজনে ইফতার মাহফিলতো হবে; তাছাড়া উপজেলা, পৌরসভা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে ইফতার মাহফিল করবেন নেতা-কর্মীরা। এছাড়া মাস জুড়ে ইফতার সামগ্রী বিতরণ তো থাকবেই।

এছাড়া জাতীয় পার্টি ও ইসলামী আন্দোলনসহ অন্য বেশ কয়েকটি রাজনৈতিক দল, সামাজিক ও বেসরকারি উন্নয়ন সংগঠন, সরকারি ও সতন্ত্র প্রতিষ্ঠানের উদ্যোগে ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে। তাছাড়া খুলনাস্থ আঞ্চলিক সংগঠনগুলোও অন্যান্য বছরের ন্যায় এবারও ইফতার মাহফিলের আয়োজন করবে। অন্যদিকে, পেশাজীবী সংগঠনগুলোর মধ্যে স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ-স্বাচিপ, ডক্টরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ-ড্যাব, বিএমএ খুলনা ইফতার পার্টির আয়োজন করবে বলে জানা গেছে। এসব ইফতার পার্টিতে অংশ নেবেন খুলনার রাজনীতিকবৃন্দ।

আজকের খুলনা
আজকের খুলনা