• বুধবার   ১০ আগস্ট ২০২২ ||

  • শ্রাবণ ২৬ ১৪২৯

  • || ১৩ মুহররম ১৪৪৪

আজকের খুলনা

নাব্যতা হারিয়ে পাইকগাছার শিবসা নদী এখন গোচরণ ভূমি

আজকের খুলনা

প্রকাশিত: ৩১ ডিসেম্বর ২০২১  

অব্যাহত নাব্যতা হ্রাসে খুলনার পাইকগাছা উপজেলার ঐতিহ্যবাহী শিবসা নদী ভরাট হয়ে রীতিমত এখন গোচরণ ভুমিতে পরিনত হয়েছে। নদী খননের উদ্যোগ না থাকায় চরম দুর্ভোগে রয়েছেন নদী তীরবর্তী বাসিন্দারা।

শিবসা নদীতে কিছু দিন আগেও নিয়মিত চলতো নৌকা, লঞ্চ, স্টিমারসহ বিভিন্ন নৌযান। খুলনার কয়রা-পাইকগাছা ও বড়দলসহ বিস্তীর্ণ অঞ্চলের মানুষ সহজে নৌ পথেই যাতায়াত করতো। জেলা সদর খুলনা থেকে সরাসরি পাইকারী মালামাল আনা-নেয়া হতো নৌপথেই। অথচ মাত্র কয়েক বছরের ব্যবধানেই প্রমত্তা শিবসা পলিভরাট হয়ে পরিণত হয়েছে সমতল ভূমিতে। বিস্তীর্ণ অঞ্চল জুড়ে জেগে ওঠা চরে নতুন ঘাস জন্মে পরিণত হয়েছে গোচারণ ভূমিতে। স্থানীয়রা চরভরাটি জমিতে গবাদি পশু চারনের পাশাপাশি ক্রমশ দখলে নিচ্ছে জেগে ওঠা চরের বিস্তির্ণ এলাকা।

জেগে ওঠা চরে প্রাকৃতিকভাবে গেওয়া, গোলপাতাসহ বিভিন্ন প্রজাতির গাছ জন্ম নেয়ায় অঞ্চলগুলোকে ঘিরে নতুন নতুন গাছের চারা-বীজ বপনের মাধ্যমে বনাঞ্চল গড়ে তুললেও বন্ধ হয়নি দখল প্রক্রিয়া। বিভিন্ন সময় নানা অবৈধ উপায়ে প্রভাবশালীরা শিবসার চরভরাটি জমি দখলে নিলেও কার্যত তাদের কারো বিরুদ্ধে এখন পর্যন্ত কোন প্রকার ব্যবস্থা গ্রহণ কিংবা দখল হয়ে যাওয়া সরকারী সম্পত্তি পুনরুদ্ধারে পদক্ষেপ গ্রহণ না করায় সামগ্রিক ঘটনায় প্রশ্নবিদ্ধ করেছে এলাকাবাসীকে।

এদিকে নাব্যতা হারিয়ে অস্তিত্ব সংকটে থাকা শিবসা নদী সাধারণ মানুষ পায়ে হেঁটে পারাপার কিংবা চলাচল করছে। জোয়ারের সময় হাটু পানির দেখা মিললেও ভাটায় নদীর চিহ্ন দেখা মেলা ভার হয়ে পড়েছে। এমন পরিস্থিতিতে নদীতে শহর রক্ষা কিংবা কোন নিয়ন্ত্রণ বাঁধ না থাকায় বর্ষা মৌসুমে জোয়ার ও বিস্তীর্ণ অঞ্চলের পানি ঢুকে প্লাবিত হয় গোটা এলাকা।

পাইকগাছা পানি উন্নয়ন বোর্ডের (এস.ও) রাজু আহম্মেদ জানান, নদী খনন না হওয়া পর্যন্ত এ সমস্যা সমাধানের কোন বিকল্প নেই। নদীটি খননের জন্য সরকারের সংশ্লিষ্ট কৃর্তপক্ষকে লিখিতভাবে অবহিত করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে পৌর মেয়র সেলিম জাহাঙ্গীর বলেন, শিববাটী ব্রীজ থেকে হাঁড়িয়া পর্যন্ত শিবসা নদী খননের জন্য তিনি সরকারের সংশ্লিষ্ট মহলে চেষ্ঠা অব্যাহত রেখেছেন। নদীটি অতিদ্রুত খনন না হলে একেবারেই অস্তিত্ব হারাবে ঐতিহ্যের শিবসা বলেও মনে করেন তিনি।

খুলনা জেলা পরিষদ’র সদস্য ও পাইকগাছা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শেখ কামরুল হাসান টিপু বলেন, শিবসা খনন এখন পাইকগাছাবাসীর প্রাণের দাবি। জনপদের জীবন-জীবিকা সচল রাখতে শিবসা খননের বিকল্প নেই।

এদিকে শিবসার অব্যাহত নাব্যতা হ্রাস ও ধারাবাহিক দখল প্রক্রিয়ায় দূর্ভোগের পাশাপাশি বিভিন্ন আশংকায় রয়েছেন নদী তীরবর্তী বাসিন্দারা। তারা অচিরেই নদী খননের পাশাপাশি দখলদারদের ঠেকাতে প্রশাসনকে সোচ্চার হওয়ার দাবি জানান।

আজকের খুলনা
আজকের খুলনা