• শনিবার   ০৪ জুলাই ২০২০ ||

  • আষাঢ় ২০ ১৪২৭

  • || ১৩ জ্বিলকদ ১৪৪১

আজকের খুলনা
১৯১

খুলনায় স্বামীর নির্যাতনের শিকার গৃহবধূ হাসপাতালে ভর্তি

আজকের খুলনা

প্রকাশিত: ১১ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

খুলনার ফুলতলায় স্বামীর নির্যাতনের শিকার গৃহবধূকে তার স্বামীর বাড়ি থেকে উদ্ধার করেছে স্বজনরা। মঙ্গলবার (১১ ফেব্রুয়ারি) উদ্ধারের পর ওই গৃহবধূকে নড়াইল সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বর্তমানে তিনি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। 

আহত গৃহবধূর নাম রিনা বেগম। রিনা নড়াইল সদর উপজেলার রূখালী গ্রামের মৃত ফজর গাজীর মেয়ে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরে করার প্রস্তুতি চলছে। 

নির্যাতিতা গৃহবধূ ও তার স্বজনরা জানায়, নড়াইল সদর উপজেলার রূখালী গ্রামের মৃত ফজর গাজীর মেয়ের রিনার সঙ্গে খুলনা ফুলতলা উপজেলার যুগ্নিপাশা গ্রামের বারিক মোল্যার ছেলে রফিকুলের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই মাদকাসক্ত রফিকুল নানা অজুহাতে টাকা চেয়ে রিনার উপর নির্যাতন করে আসছে। পিতৃহীন রিনার হতদরিদ্র পরিবারের তেমন কোন সঙ্গতি না থাকলেও মেয়ের সুখের কথা ভেবে বিভিন্ন সময় তারা ধার-দেনা করে জামাইকে অনেক টাকা পয়সা যৌতুক দিতেন। 

রফিকুলের সীমাহীন দাবি মেটানো রিনার পরিবারের পক্ষে সম্ভব না হওয়ায় এর মাশুল হিসেবে রিনাকে তার শাস্তি ভোগ করতে হতো। একমাত্র মেয়ের ভবিষ্যতের কথা ভেবে রিনা সবকিছু নীরবে সহ্য করে আসছিল। কিন্তু গত রবিবারের রফিুকুল রিনার উপর দিনে রাতে দফায় দফায় নির্যাতন চালায়। অসহনীয় এ নির্যাতনে রিনার মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে রক্তাক্ত জখম হয়। 

এ অবস্থায় কোন প্রকার চিকিৎসা না দিয়ে স্বামী রফিকুল রিনাকে ঘরে আটকে রাখে। খবর পেয়ে স্বজনরা সেখান থেকে রিনাকে উদ্ধার করে মঙ্গলবার নড়াইল সদর হাসপাতালে এনে ভর্তি করে। নির্যাতিতা ও তার স্বজনরা এ নির্মমতার দৃষ্টান্তমূলক বিচার দাবি করেছেন। 

নড়াইল সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. আ ফ ম মুশিউর রহমান জানান, রিনার দেহের বিভিন্ন স্থানে রক্তাক্ত জখম রয়েছে, তাকে অর্থোপেডিক বিভাগে ভর্তি করা হয়েছে।

আজকের খুলনা
আজকের খুলনা
খুলনা বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর