আজকের খুলনা
ব্রেকিং:
সিরাজগঞ্জে ট্রাকচাপায় দুই ব্যবসায়ী নিহত মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে গাইবান্ধার রঞ্জু মিয়াসহ পাঁচ ‘রাজাকারের’ রায় মঙ্গলবার বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদের পরিবারকে ১০ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার নির্দেশনা চেয়ে করা রিটের শুনানি সাংবাদিক দিল মনোয়ারার মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক

সোমবার   ১৪ অক্টোবর ২০১৯   আশ্বিন ২৯ ১৪২৬   ১৪ সফর ১৪৪১

আজকের খুলনা
সর্বশেষ:
মাগুরায় সিএনজি চাপায় পথচারী নিহত পুলিশের ওপর বোমা হামলায় জড়িত অভিযোগে গ্রেফতার ২ পিরোজপুরে অনির্দিষ্টকালের পরিবহন ধর্মঘট আড়াইহাজারে এক সন্তানের জননীকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে আটক ২ টঙ্গীতে ভয়াবহ আগুন, আহত ২
১১

খুনিকে আদালতেই জড়িয়ে ধরে ক্ষমা করে দিলেন নিহতের ভাই!

ইত্যাদি ডেস্ক

প্রকাশিত: ৬ অক্টোবর ২০১৯  

প্রতিবেশী কৃষ্ণাঙ্গ যুবককে হত্যা করেছিলেন তিনি। সে অপরাধে দশ বছর কারাদণ্ডও পেলেন। এ অবশ্য চেনা ছবি। কিন্তু তারপর যা হল, তাতে বিচারক থেকে শুরু করে আইনজীবী সকলেই হতবাক। 

যুক্তরাষ্ট্রের ডালাসের এক আদালতে রায় ঘোষণার পরই অপরাধীকে জড়িয়ে ধরলেন নিহতের ভাই। আর বললেন, 'আর পাঁচ জনের মতো আপনাকেও ভালোবাসি। আমি চাই না আপনি জেলের মধ্যে পচে মরুন। আমি ব্যক্তিগতভাবে আপনার মঙ্গল কামনা করি।' 

অপরাধী ডালাসের সাবেক পুলিশ অফিসার আম্বার গাইঘের। নিহত সেই কৃষ্ণাঙ্গ তরুণের নাম বোথাম জিন। আম্বারের বিরুদ্ধে বর্ণবিদ্বেষের জেরে খুনের অভিযোগ আনা হয়। যদিও তরুণী সাবেক অফিসার আম্বারের দাবি, ঘটনার দিন তিনি ভুল করে বোথামের ফ্ল্যাটে ঢুকে পড়েন। ঘটনাচক্রে ২৬ বছরের ওই যুবক তখন মদ্যপান করছিলেন, ফ্ল্যাটের দরজা ছিল খোলা। 

আম্বারের যুক্তি, ওই ফ্ল্যাটটিকে তার নিজের ফ্ল্যাট বলে ভুল করেছিলেন। এবং সেখানে কোনও অজ্ঞাতপরিচয় দুষ্কৃতী ঢুকে পড়েছে ভেবে গুলি চালান তিনি। গুলি লাগে বোথামের বুকে, মারা যান তিনি।

আম্বারের শাস্তি ঘোষণার পর আদালতে তখন চরম নিস্তব্ধতা। হঠাৎই বিচারক ট্যামি কেম্পের কাছে বোথামের ভাই ব্র্যান্ড জিন আর্জি জানান, 'জানি না, এটা সম্ভব কি না, একবার কি আম্বারকে জড়িয়ে ধরতে পারি?' বিচারক কেম্প অনুমতি দিলে ধীরে ধীরে এগিয়ে এসে ভাইয়ের হত্যাকারীকে আলিঙ্গন করেন তিনি। 

এরপর বলেন, 'আমার পরিবার কিংবা অন্য কারও সামনে এটা কখনও বলে উঠতে পারব না যে আমি এটা চাই না যে আপনি জেলে যান, আমি চাই আপনি যেন সেরাটুকুই পান, বোথাম বেঁচে থাকলেও এটাই চাইত। আর সেটা একমাত্র যিশুর চরণে নিজেকে সমর্পণের মাধ্যমেই পাওয়া সম্ভব।' 

আজকের খুলনা
আজকের খুলনা
এই বিভাগের আরো খবর