• বুধবার   ০৮ এপ্রিল ২০২০ ||

  • চৈত্র ২৫ ১৪২৬

  • || ১৪ শা'বান ১৪৪১

আজকের খুলনা
সর্বশেষ:
আইজিপি হলেন বেনজীর আহমেদ, ডিজি আবদুল্লাহ আল মামুন দেশে করোনায় আরো ৩ মৃত্যু, নতুন আক্রান্ত ৫৪ ফেসবুকে প্রধানমন্ত্রীর নামে গুজব ছড়ানোর দায়ে আটক ১ খুলনায় করোনা নিয়ে গুজব ছাড়ানোর অভিযোগে গ্রেফতার ১ মাজেদের মৃত্যুদণ্ড পরোয়ানা জারির আবেদন সাভারে ট্রাকচাপায় পোশাক শ্রমিক নিহত ফের বাড়ল হজযাত্রী নিবন্ধনের সময়সীমা খুলনা বিভাগের সঙ্গে রবিবার প্রধানমন্ত্রীর ভিডিও কনফারেন্স ত্রাণ কার্যক্রম মনিটরিংয়ের দায়িত্বে ৫৫ কর্মকর্তা
৫১

কয়রায় লবনাক্ত জমিতে গমের বাম্পার ফলনের সম্ভাবনা

আজকের খুলনা

প্রকাশিত: ১৩ মার্চ ২০২০  

খুলনা জেলার কয়রা উপজেলায় লবনাক্ত জমিতে আধুনিক উন্নত জাতের গমের চাষ করা হয়েছে। খরচ কম ও স্বল্প পরিশ্রমে ভাল ফলন পাওয়া ও দাম পাওয়া যায় বলে স্থানীয় কৃষকরা এ গম চাষে ঝুঁকে পড়েছেন।

কয়রার কৃষকদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, ওই জন পদের অধিকাংশ জমি আমন ধান কাটার পরে খালি পড়ে থাকতো। সেখানে মাত্র ১টি মাত্র সেচ প্রয়োগ করে গমের ফসল ফলানো সম্ভব হচ্ছে। সরেজমিন কৃষি গবেষণা বিভাগ কয়রার কৃষকদের উন্নতি কল্পে ব্লাস্ট প্রতিরোধী জাত বারি গম-৩৩ দেন করার পরামর্শ দেয়েছিলেন। কৃষকরা সেই চাষাবাদ করে বাম্পার ফলনের সম্ভাবনা দেখছেন।

২নং কয়রা গ্রামের কৃষক মোঃ শফি শেখ বলেন, এলাকার জমিতে আমন ধান কাটার পর খালি পড়ে থাকতো। কিন্তু এ বছর কৃষি গবেষণার সহযোগিতায় আমি ৫ বিঘা জমিতে গম চাষ করে ভাল ফলন পাবো বলে আশা করছি। ধানের চেয়ে গম আবাদ লাভজনক হওয়ায় এ কাজে ঝুঁকে পড়েছি। বিঘা প্রতি ৬ থেকে ৭ হাজার টাকা খরচ করে ১৩ থেকে ১৫ হাজার টাকা আয় করা সম্ভব হবে বলে তিনি জানায়।

অপর এক কৃষক জিয়াদ আলী বলেন, এলাকায় ইদুর গমের অনেক ক্ষতি করে। তবে কৃষি গবেষণার সহযোগিতায় সেটা দমন করতে পেরেছি। আশা করছি ব্যাপক ফলন তুলতে পারবো।

এমএলটি সাইট কয়রার বৈজ্ঞানিক সহকারী মোঃ জাহিদ হাসান বলেন, কয়রায় লবনাক্ত এলাকার মধ্যে গমের ৪টি জাত নিয়ে গবেষণা করা হচ্ছে। এর ভিতরে বারি গম-২৫ ও বারি গম-৩৩ এর ফলন ভাল হয়েছে বলে মনে হচ্ছে।

সরেজমিন গবেষণা বিভাগ খুলনার প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. মোঃ হারুনর রশিদ বলেন, কয়রার অনেক জমি অনাবাদি পড়ে থাকে। যে সমস্ত জমি ডিসেম্বরের শেষ সপ্তাহ পর্যন্ত চাষের উপযুক্ত হয় এবং ১ থেকে ২টি সেচের ব্যবস্থা থাকলে অনেক জমিতে গমের আবাদ বাড়ানো সম্ভব।

তিনি আরও বলেন, এ বছর সারের দাম অন্য বছরের চেয়ে কম দামে কিনতে পারছে কৃষকরা। তা ছাড়া সুষম সার প্রয়োজন মত সেচ দিতে পারলে এবং গমের দাম বেশি হওয়ায় এ অঞ্চলের কৃষকরা গম চাষে আগ্রহী হয়ে উঠছে বলে তিনি আশাবাদী।

আজকের খুলনা
আজকের খুলনা
খুলনা বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর