• রোববার   ০৫ এপ্রিল ২০২০ ||

  • চৈত্র ২২ ১৪২৬

  • || ১১ শা'বান ১৪৪১

আজকের খুলনা
সর্বশেষ:
প্রধানমন্ত্রীর কর্মপরিকল্পনা ঘোষণা কাল চিকিৎসা না পেলে ভোক্তা অধিদফতরকে জানানোর অনুরোধ ঝিনাইদহে ট্রাকের ধাক্কায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত দেশে আরও ৯ জন করোনা রোগী শনাক্ত, মৃত্যু ২ করোনায় মৃতের সংখ্যা ৫৯ হাজার ছাড়ালো, সুস্থ হয়েছেন ২ লাখ ২৯ হাজার যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় চাঁদপুর প্রবাসী নুর মোহাম্মদের মৃত্যু মাগুরায় যুবকের গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার
৫৮

করোনা-আতঙ্কে গোমূত্র পান করে হাসপাতালে, বললেন ‘ভুল করেছি’

আজকের খুলনা

প্রকাশিত: ১৯ মার্চ ২০২০  

করোনাভাইরাস থেকে মুক্তি পেতে ‘গো-আরক (গোমূত্র)’ খেয়েছিলেন ভারতের পশ্চিমবঙ্গের ঝাড়গ্রাম শহরের বাসিন্দা শিবু গরাই। তবে গোমূত্র তার শরীরে প্রতিষেধকের কাজ তো করেইনি, বরং গলা ও বুকে ব্যথা নিয়ে তাকে হাসপাতালে যেতে হয়েছে।

ভারতের প্রভাবশালী পত্রিকা আনন্দবাজার এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। ওই ব্যক্তিকে জেলা সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

হাসপাতালের মেডিসিন ওয়ার্ডে জায়গা মেলেনি শিবুর (৪২)। হাসপাতালের মেঝেতে তার চিকিৎসা চলছে। গোমূত্র খেয়ে অনুতপ্ত শিবু বলেছেন, ‘খুব ভুল করেছি। করোনা ঠেকাতে আমার মতো আর কেউ যেন গোমূত্র পান না করেন।’

আনন্দবাজার জানায়, ঝাড়গ্রাম শহরের চার নম্বর ওয়ার্ডের জামদা এলাকায় থাকেন শিবু। বাড়িতেই কাপড়ের দোকান রয়েছে তার। স্ত্রী, দুই ছেলে নিয়ে সংসার। কয়েকদিন আগে বন্ধুদের সঙ্গে মায়াপুরে বেড়াতে গিয়েছিলেন। ফেরার সময়ে সেখান থেকে ১৮০ টাকা দিয়ে কিনে আনেন গোমূত্রের শিশি। তাতে লেখা ‘গো-আরক’।

শিবু জানান, বিক্রেতা বলেছিলেন, এক থেকে দুই ছিপি ‘গো-আরক’ নিয়মিত খেলে শরীরের রক্ত দোষ কাটে। করোনাসহ নানা রকম শারীরিক ব্যাধি থেকেও মুক্তি পাওয়া যায়। করোনা-ভয় কাটাতে বিশ্বাস করেই মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এক ছিপি গোমূত্রের আরক খেয়েছিলেন শিবু। তার পরেই শরীরে নানা অস্বস্তি শুরু হয়। গলা ও বুক জ্বলতে থাকে।

শিবুকে পরিবারের লোকজন নিয়ে যান ঝাড়গ্রাম জেলা সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালের জরুরি বিভাগে। শারীরিক অবস্থা দেখে শিবুকে ভর্তি করে নেন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

আজকের খুলনা
আজকের খুলনা
ইত্যাদি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর