• বৃহস্পতিবার   ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ||

  • ফাল্গুন ১৫ ১৪২৬

  • || ০৩ রজব ১৪৪১

আজকের খুলনা
সর্বশেষ:
সৌদিতে সড়ক দুর্ঘটনায় বাংলাদেশি যুবকের মৃত্যু অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ৮৬ রানে হারলো বংলাদেশের নারীরা খালেদা জিয়ার জামিন আবেদন আবারও খারিজ কুষ্টিয়ায় ট্রাকচাপায় বৃদ্ধা নিহত আগামী ২ থেকে ১৫ই মার্চ পর্যন্ত হজ্বযাত্রীদের নিবন্ধন
৯৬১

ইশরাকের ভোট নিয়ে নাটক জেনে গেছেন দক্ষিণের ভোটাররা

আজকের খুলনা

প্রকাশিত: ২৬ জানুয়ারি ২০২০  

সিটি নির্বাচন যত ঘনিয়ে আসছে রাজধানী ঢাকা ততোই উৎসবের নগরীতে পরিণত হয়েছে ঢাকা। প্রার্থীদের হরেক রকমের পোস্টারে ছেয়ে গেছে সমগ্র নগরী। হুটহাট করেই প্রার্থীরা হাজির হচ্ছেন ভোটারদের সামনে। ঢাকার উত্তরের ৫৪ ও দক্ষিণের ৭৫টিসহ ১২৯ টি ওয়ার্ড মেয়র ও কাউন্সিলর প্রার্থীরা রাতদিন তাদের প্রচারণা চালাচ্ছেন। ৪৩ টি সংরক্ষিত ওয়ার্ডে নারী প্রার্থীরাও পিছিয়ে নেই। তারাও জনসংযোগ করছেন সমান তালে।

চায়ের দোকান, বাসস্ট্যান্ডসহ সর্বত্র আলোচনার একটিই আলোচনার বিষয়-নির্বাচন। ভোটাররাও চুলচেরা বিশ্লেষণ করছেন প্রার্থীদের নিয়ে। কাকে ভোট দেবেন, কোন প্রার্থী সর্বাপেক্ষা যোগ্য, অতীতে ক্ষমতায় থেকে কতটুকু উন্নয়ন করেছেন, কাকে সবসময় পাশে পাওয়া যায়।

ঢাকা দক্ষিণের পল্টন, মতিঝিল, কমলাপুর, গোপীবাগ, যাত্রাবাড়ী, কোতোয়ালী, চকবাজার, হাজারীবাগ, ধানমন্ডি, কলাবাগান, শাহবাগ, নিউমার্কেট প্রভৃতি এলাকার ভোটারদের সাথে কথা বলে জানা গেছে ঢাকাকে সুন্দর বাসযোগ্য একটি নগরী হিসেবে গড়ে তুলতে তারা কেমন নেতৃত্ব চান।

কমলাপুর এলাকার বাসিন্দা প্রবীন আইনজীবি আশরাফ উল হক বলেন, দীর্ঘদিন ঢাকার মেয়র ছিলেন সাদেক হোসেন খোকা। তার আমলে দেখেছি, ঢাকার মত একটি সুন্দর শহর কীভাবে বসবাসের অনুপযুক্ত হয়ে পড়েছিল। শহরের উন্নয়ন তো হয়নি বরং সরকারী অর্থ লুটপাটের স্বর্গ রাজ্য বানানো হয়েছিল সিটি করপোরেশনকে। আজ তার ছেলে ইশরাক হোসেন প্রার্থী হয়েছেন। ইশরাককে কখনো সাধারণ মানুষের পাশে দেখিনি। বাবার পরিচয়ে মনোনয়ন পেয়েছে সে। তার হাতে ঢাকার উন্নয়নের দায়িত্ব তুলে দেয়া নিছক বোকামী। অন্যদিকে, ব্যারিষ্টার শেখ ফজলে নুর তাপস রাজনৈতিক, সাংগঠনিকসহ সব দিক থেকে অভিজ্ঞ। তার হাতে আমরা নিশ্চিন্তে ঢাকার দায়িত্ব দিতে পারি।

চকবাজারের ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী মোতাহার হোসেন বলেন, এই জীবনে বিএনপিকে কোনো দিন ভোট দেব না। চুরি বাটপারী ছাড়া বিএনপি আর কিছু বোঝে না। গরীবের পেটে লাথি মেরে তারা নিজেদের পকেট ভরিয়েছে। আমাদের মতো সাধারণ মানুষের জন্য কিছুই করেনি।

শাহবাগ এলাকায় কথা হয় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সহযোগী অধ্যাপক হাসান শাহরিয়ারের সাথে। তিনি বলেন, মানুষ বিএনপির শাসনামল দেখেছে। সন্ত্রাস-জঙ্গীবাদ-লুটপাট-স্বজনপ্রীতির আরেক নাম বিএনপি। বিএনপির প্রার্থীকে ভোট দিলে রাজধানী ঢাকা আগামী ৫ বছরে উন্নয়নের দিক থেকে পিছিয়ে পড়বে ৫০ বছর। তিনি আরো বলেন, সাদেক হোসেন খোকার পুত্র ইশরাক হোসেনের কোন যোগ্যতা নেই মেয়র পদে নির্বাচন করার। এর আগে সিটি নির্বাচনে ইশরাকে পিতা সাদেক হোসেন খোকা হামলার নাটক করেছিলেন। শোনা গিয়েছিল, ‘গরুর রক্ত’ মেখে তিনি প্রচার করেছিলেন তিনি আহত হয়েছেন। পরে সব সত্য বেরিয়ে আসে। একইভাবে ইশরাকও তার প্রচারণায় নিজেদের লোক দিয়ে একের পর এক হামলার নাটক সাজাচ্ছেন।

একটি বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র আহসান সাব্বির বলেন, ইশরাক হোসেন একজন উচ্চ শিক্ষিত ব্যক্তি। দীর্ঘদিন তিনি লন্ডনে ছিলেন। অনেক কিছুই জানেন তিনি। তাকে ভোট দিলে ঢাকা একদিন লন্ডন হবে, ইনশা আল্লাহ।

এ বিষয়ে সমসাময়িক রাজনৈতিক বিশ্লেষক প্রফেসর আজমল হুসাইন বলেন, নানা কারণে বিএনপি ও তাদের প্রার্থীরা বিতর্কিত। ভোটাররা ভালো করেই জানের, বিএনপিকে ভোট দিলে কোনো উন্নয়ন হবে না। তাই ভোটারদের সমর্থন আওয়ামীলীগের দিকেই রয়েছে। সর্বক্ষেত্রে সফল রাজনৈতিক দল আওয়ামীলীগে ভোট দিলে ঢাকা তিলোত্তমা নগরী হবে, যানজটমুক্ত হবে, শ্বাস নেয়ার জন্য নির্মল বাতাস পাওয়া যাবে-এ বিশ্বাস অধিকাংশ ভোটারের।  

 

  

আজকের খুলনা
আজকের খুলনা
রাজনীতি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর